Breaking News

লজ্জার বিষয় ৭০ বছর পরেও নাগরিকত্ব প্রমাণ করতে হচ্ছে:মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

Image
 

ভাস্কর বাগচী,নিউজ ডেস্ক,শিলিগুড়ি:শিলিগুড়িতে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী  সিএএ-এর নিয়ে কেন্দ্রকে আক্রমণ করে বলেন যে,কেন্দ্রকে  আমাদের অধিকার হরণ করতে দেবনা।
‘আমরা যদি বেকারত্ব ও ক্ষুধার বিষয়টি উত্থাপন করি তবে তারা বলে যে পাকিস্তানে যাও।’ এদিন তিনি শিলিগুড়িতে  এনআরসি ও সিএএ বিরোধী এক সমাবেশে এই কথা বলেন।তিনি বলেন ‘আমি ওদেরকে আমাদের অধিকার কেড়ে নিতে দেব না। লজ্জার বিষয় হল স্বাধীনতার ৭০ বছর পরেও আমাদের নাগরিকত্ব প্রমাণ করতে হবে।’

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী কংগ্রেস পার্টি এবং সিএএ-এর বিরুদ্ধে যারা বিক্ষোভ করছেন তাদের আক্রমণ করেছিলেন, তারা কেন পাকিস্তানকে উন্মোচনা করছেন না এই প্রশ্ন নিয়ে। “ধর্মের ভিত্তিতে পাকিস্তান গঠন করা হয়েছিল, সেখানে ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের নির্যাতন করা হচ্ছে। নিপীড়িতরা শরণার্থী হয়ে ভারতে আসতে বাধ্য হয়েছিল। তবে কংগ্রেস এবং তার সহযোগীরা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কথা বলছে না, পরিবর্তে তারা এই শরণার্থীদের বিরুদ্ধে সমাবেশ করছে।’ বৃহস্পতিবার কর্ণাটকের তুমাকুরুতে প্রধানমন্ত্রী মোদী একথা বলেছিলেন।
এ প্রসঙ্গে প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করেন, দেশে ধর্মীয় বিভাজনের রাজনীতি করছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এরপরই তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী কি ভারত সম্পর্কে ভুলে গেছেন যে নিয়মিত পাকিস্তানের বিষয়ে কথা বলছেন তিনি?’
সিএএ-র বিরোধিতায় অন্যান্য রাজনৈতিক দলগুলিকে তার সাথে যোগ দেওয়ার আহ্বান জানান পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী। ‘আমি ন্যাশনাল রেজিস্টার অফ সিটিজেন এবং সিএএ-র বিরুদ্ধে লড়াই করছি। আমার সাথে হাত মিলিয়ে আমাদের দেশের গণতন্ত্র বাঁচাতে সকলকে এগিয়ে আসার অনুরোধ করছি।’ বলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Share With:


Leave a Comment

  

Other related news