Breaking News

কোচবিহারে বাহারি বসন্ত পরিবারের তরফ থেকে দোল উৎসবের আয়োজন

Image
 

কোচবিহার,২২ ফেব্রুয়ারি ঃ রাজার শহরে যেন এক টুকরো শান্তি নিকেতন। রঙের দোলায় মেতেছে বাংলার এই প্রান্তিক জেলা। কোচবিহারের মানুষ তো বটেই এই উৎসবে আসছেন ডুয়ার্সের শিল্পিরাও।
 
কোচবিহার ও ডুয়ার্সের শিল্পীরা দোলের রঙে রঙিন হয়ে উঠবেন। কোচবিহারে বাহারি বসন্ত পরিবারের সদস্যরা নিয়েছে এমনই উদ্যোগ। বাহারি বসন্তের ষষ্ঠ বছরের এই নিবেদন দোলকে ঘিরে রাধা-কৃষ্ণের প্রেম। একাধিক নাচ-গান ও আবৃত্তির এক যোগে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। অনুষ্ঠানে থাকছে আদিবাসী শিল্পীদের নৃত্যানুষ্ঠান যা এই রঙের অনুষ্ঠানে এক ভিন্ন মাত্রা দেবে। ফাগুনের রঙে মাতোয়ারা হয়ে কোচবিহারের ৬ টি নাচের স্কুল, ৬টি গানের স্কুল ও ৩টি আবৃত্তি স্কুলের প্রায় ৫০০ শিল্পী অংশ নেবেন দোলের সকালে হবে বাহারি বসন্তের এই উৎসব। তারই শুরু হয়েছে মহড়া। রীতিমত প্রতিদিন এই মহড়ায় সামিল হচ্ছেন শিল্পীরা। তাদের উন্মাদনা তুঙ্গে। যেন ক্যলেন্ডারের পাতা বলছে দোল আসতে এখনও বেস বাকি। তবে সেই অপেক্ষায় না থেকে দোলের উৎসবে রঙিন হতে শুরু করে দিয়েছে বাহারি বসন্ত। দোলের দিনে নিজের মনকে আর একটু রাঙিয়ে তুলতে আসতেই পারেন কোচবিহারে। আগামী ৯ই মার্চ সকালে ওরে গৃহ বাসী গান ও ১০ জন শ্রীখোল বাদকের তালে প্রভাতফেরীর মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সূচনা হবে। তারপর এম.জে.এন. স্টেডিয়ামে বসন্ত উৎসব উজ্জাপন। এই আনুষ্ঠানে বসন্তের উপর রবীন্দ্র সংগীত, নজরুলগীতি, ছড়া, আলেখ্য, নৃত্য সমস্ত কিছু  নিয়ে প্রায় ৪ ঘন্টার লাইভ একটি অনুষ্ঠান এবং থাকছে প্রবীন শিল্পী দের সম্বর্ধনা অনুষ্ঠান উপহার দিতে চলেছে তারা। শহর সংলগ্ন শাল বাগানে তারই প্রস্তুতি চলছে জোড় কদমে। এ বিষয়ে ছন্দ মেলা শিক্ষায়তনের শিল্পী দীপান্বিতা মন্ডল জানান "বসন্ত উৎসব মানেই রঙের উৎসব, আর রঙের উৎসব মানেই খুশির মেজাজ রঙে রঙে মাতোয়ারা হয়ে ওঠার উৎসব। বাহারি বসন্তের উপস্থাপনায় এম জে এন স্টেডিয়ামে এ বছরও এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। সকলের উপস্থিতি কামনা করছি। আমরা একসাথে রঙে মেতে উঠবো।" বাহারি বসন্ত শিল্পী শ্রীপর্ণা রায় সরকার ও শিল্পী শর্মিষ্ঠা দাস গুপ্ত নিয়োগী জানান বাহারি বসন্তের প্রস্তুতি পর্বের জন্য আজ আমরা শালবাগানে মিলিত হয়েছি। নাচ গান,আবৃত্তি এবং রং খেলার মধ্য দিয়ে বসন্ত উৎসবের খুশী সবার মধ্যে আমরা ভাগ করে নিতে চাই। বসন্ত উৎসবে সকলের আমন্ত্রণ জানাই।

Share With:


Leave a Comment

  

Other related news