news-details
Nation

ঝাড়খণ্ডে গনধর্ষনের শিকার ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ছাত্রী 

নিজস্ব সংবাদদাতা, ০৯ জানুয়ারি: দাদার পরিচিত পরিচয় দিয়ে এক ইঞ্জিনিয়ারিং ছাত্রীকে রেলস্টেশন থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে ৫জন মিলে ধর্ষন করে ফেলে রেখে গেল রাস্তায়। ঝাড়খণ্ডের চক্রধরপূরের ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।
  


মঙ্গলবার পুলিশ জানিয়েছে ঘটনাটি ৩১ডিসেম্বরের যখন ওই ছাত্রী রৌরকেল্লার একটি বেসরকারি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের হোস্টেল থেকে বাড়ির উদ্দেশ্য রওনা দিয়েছিল। ওড়িশার ঝাড়সুকদার বাসিন্দা ওই ছাত্রী ট্রেন ধরার উদ্দ্যেশে রৌরকেল্লা স্টেশনে অপেক্ষা করছিল। সেই সময় এক যুবকের সঙ্গে তাঁর আলাপ হয় যে কিনা তাঁকে তাঁর দাদার পরিচিত বলে জানায়। ওই যুবক তাঁকে জানায় যে ট্রেনের জন্য বহুক্ষন অপেক্ষা করার চাইতে বাস ধরাই ভালো এবং সে নিজেও ঝাড়সুকদা যাওয়ার বাস ধরতে চায়। এই সময় চক্রধরপুর বাস টার্মিনাস থেকে সরাসরি বাস রয়েছে। 
 


পুলিশ জানায় এরপরই তরুনী ওই যুবকের সাথে বাস ধরার উদ্দেশ্যে রওনা দেয় যদিও যুবক তাঁকে সনুয়া নামক একটি জায়গায় নিয়ে যায় যেখানে আরও চার যুবক অপেক্ষা করছিল। এরপরই পাঁচজন মিলে ধর্ষন করে একটি নির্জন জায়গায়। তরুনীকে প্রায় অজ্ঞান অবস্থায় সনুয়ার কাছকাছি লোটাপাড়া থেকে উদ্ধার করে স্থানীয় মানুষেরা। এরপরই রৌরকেল্লা রেলপুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে তরুনী। অভিযুক্তদের চিহ্নিত করতে স্টেশনের সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

You can share this post!

Comments System WIDGET PACK

Download Our Android App from Play Store and Get Updated News Instantly.